Follow us

ড্যাফোডিলে প্রফেশনাল আইটি বিষয়ে ডিপ্লোমার সুযোগ

ড্যাফোডিলে প্রফেশনাল আইটি বিষয়ে ডিপ্লোমার সুযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক :: সময়ের সাথে সাথে আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন আইটি নির্ভর হয়ে পড়ছে। ফলে আইটি সেক্টর হয়ে উঠেছে ক্যারিয়ার গঠনের জন্য তরুণ-প্রজন্মের প্রথম পছন্দ।

আইটি সেক্টরের বিভিন্ন ধরনের বিশেষায়িত শাখা যেমন. প্রফেশনাল থ্রিডিএনিমেশন, গ্রাফিক্স ডিজাইন, পিএইচপি উইথ লারাভেল ফ্রেমওয়ার্ক, এনড্রয়েড এপস ডেভেলপমেন্ট, স্প্রিং ফ্রেমওয়ার্ক ফর জাভা, সফটওয়্যার টেষ্টিং, অগুমেন্টেড রিয়ালিটি, ভার্চুয়াল রিয়ালিটি প্রভৃতি সেক্টরই স্বপ্নময় সম্ভাবনা সমৃদ্ধ। কিন্তু আমাদের দেশে বাস্তবমুখী শিক্ষা গ্রহণের জন্য পর্যাপ্ত সংখ্যক দক্ষ ও মানসম্মত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অভাবই এক্ষেত্রে প্রধান অন্তরায় হয়ে দেখা দিয়েছে। এক্ষেত্রে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল একাডেমি’র কার্যক্রম ব্যতিক্রম। দক্ষতা ও সাফল্যের সাথে বহু শিক্ষার্থীকে প্রফেশনাল প্রশিক্ষণ প্রদান, আত্মকর্মসংস্থানে সহায়তা ও দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে যুগান্তকারী ভূমিকা পালন করার জন্যই দেশের সেরা প্রশিক্ষণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসাবে স্বীকৃত।
ড্যাফোডিল পরিচালিত কোর্সগুলি সম্পূর্ণ ভাবে ব্যবহারিক ক্লাস ভিত্তিক যা সার্টিফাইড প্রফেশনাল প্রশিক্ষকদের সার্বিক তত্ত্বাবধায়নে পরিচালিত হয়। কোর্সগুলির বিশেষ বৈশিষ্ট্য হচ্ছে কোর্স শেষে বাধ্যতামুলক রিয়েললাইফ প্রজেক্ট ওয়ার্ক ও ১-৩ মাস মেয়াদি ইন্টার্ণশিপ যা একজন শিক্ষার্থীকে হাতে কলমে কাজ শিখতে সাহায্য করে। এছাড়াও রয়েছে প্রশিক্ষকদের সার্বক্ষনিক ও সার্বিক তত্ত্বাবধায়নে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে কোর্স সমাপ্তি, পরীক্ষা গ্রহণ ও ফলাফল মূল্যায়নের নিশ্চয়তা। নিয়মিত ও পর্যাপ্ত প্রাকটিক্যাল ক্লাসে কঠোরভাবে মান নিয়ন্ত্রণের কারণে কোর্স শেষে কর্মসংস্থানের নিশ্চয়তা প্রায় শতভাগ।

সার্বক্ষণিক জেনারেটর, পাঠাগার, অত্যাধুনিক প্রযুক্তিসম্পন্ন আন্তর্জাতিক মানের কম্পিউটার ল্যাব সমৃদ্ধ সুবিশাল ক্যাম্পাস যা শিক্ষার্থীদের শিক্ষার পরিবেশকে করে নিশ্চিত ও যুগোপযোগী। কর্মব্যস্তদের জন্য রয়েছে সান্ধ্যকালীন ক্লাসের ব্যাবস্থা। ড্যাফোডিল পরিচালিত বিভিন্ন প্রশিক্ষণ কোর্সে দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদেরকে ড্যাফোডিল ফাউন্ডেশন বৃত্তি প্রদান করে থাকে। ন্যূনতম এসএসসি পাশ যে কোন বয়সের যে কেউ এই কোর্স গুলোতে ভর্তি হতে পারবে। প্রফেশনাল প্রশিক্ষণ প্রদানের মাধ্যমে বহুসংখ্যক প্রশিক্ষনার্থীকে কর্মপোযোগী করেছে, যারা এখন স্ব-স্ব ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত। তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ে প্রফেশনাল প্রশিক্ষণ প্রদানের মাধ্যমে দেশের শিক্ষিত সমাজকে দক্ষ জনবল তথা আত্মকর্মসংস্থানের উপযোগি করে গড়ে তুলতে এক বছর মেয়াদি নিম্নলিখিত প্রফেশনাল কোর্স সমূহে সীমিত সংখ্যক আসনে ছাত্র-ছাত্রী ভর্তি করা হয়।

কোর্সগুলি হলোঃ
১। ডিপ্লোমা-ইন- ওয়েব ইঞ্জিনিয়ারিং
২। ডিপ্লোমা-ইন-মোবাইল এপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্ট
৩। ডিপ্লোমা-ইন-ডিজিটাল মার্কেটিং
৪। ডিপ্লোমা-ইন-ই কমার্র্স

প্রতি বছর ৪ টি সেশনে (মার্চ, জুন, সেপ্টেম্বও ও ডিসেম্বর) এবং ৩টি শিফটে (সকাল-বিকাল-সান্ধ্যকালীন) ডিপ্লোমা প্রোগ্রাম সমূহে ভর্তির সুযোগ দেয়া হয়।

বিস্তারিত জানতে ৯১১৭২০৫, ০১৮১১৪৫৮৮৬২ নম্বরে যোগাযোগ করা যাবে

বিডি প্রেস রিলিস/২৮ মার্চ ২০১৯/ এমএম


LATEST POSTS
“বৈশ্বিক অর্থনৈতিক প্রেক্ষাপট: বাংলাদেশের মুক্তির উপায়” শীর্ষক বার্ষিক সম্মেলন

Posted on নভেম্বর ২৯th, ২০২২

সোনালী ব্যাংকের সঙ্গে চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির চুক্তি

Posted on নভেম্বর ২৯th, ২০২২

মাস্টারকার্ড এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড পেল ‘নগদ’

Posted on নভেম্বর ২৭th, ২০২২

নতুন মডেলের ফোরকে ইন্টারঅ্যাকটিভ ডিসপ্লে আনলো ওয়ালটন

Posted on নভেম্বর ২৭th, ২০২২

ইউএস-বাংলার বিমান বহরে যুক্ত হলো আরো একটি বোয়িং ৭৩৭-৮০০

Posted on নভেম্বর ২৭th, ২০২২

সর্বাধিক ছয়টি রপ্তানি পদক পেল প্রাণ-আরএফএল

Posted on নভেম্বর ২২nd, ২০২২

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শাটলকে তারুণ্যের রঙে রাঙিয়ে দিলো স্কিটো

Posted on নভেম্বর ২২nd, ২০২২

পুঁজিবাজারে যোগ হলো নতুন স্বপ্ন

Posted on নভেম্বর ২১st, ২০২২

যাত্রা শুরু করল সুমাশ টেক লিমিটেড

Posted on নভেম্বর ১৯th, ২০২২

বিক্রিতে রিয়েলমি সি৩৩ রেকর্ড গড়ল দারাজ ১১.১১ ক্যাম্পেইনে

Posted on নভেম্বর ১৭th, ২০২২